ব্রেকিং নিউজ

আমার ভালোবাসা কেউ সহ্য করতে পারে না: পরীমনি

porimoni1

নতুন ছবির শুটিং শুরু করছেন পরীমনি। মুক্তির অপেক্ষায় তাঁর অভিনীত ছবি বিশ্বসুন্দরী। একটি ওয়েব সিরিজের কাজ শেষের পথে। কেমন যাচ্ছে বর্তমান ব্যস্ততা? পরীমনি জানালেন অকপটে।

‘পাফ ড্যাডি’ কেমন হলো?
একটা রহস্যময় চরিত্র। আমার ভালো লেগেছে। কাজটি করে আমি সাহসী হয়েছি। এটা পর্দার সাহস না। কাজটা করে আমি ইতিবাচক শক্তি পেয়েছি।

একটু বুঝিয়ে বলবেন?
মেয়েটার চরিত্রটি খুবই রহস্যময়। একজন নবাগত নায়িকা, যার ছবি ফ্লপ হয়। দুটি ছবি এমন হওয়ার পর ওর খুব মন খারাপ হয়। এরপরও হাল ছাড়ে না। মেয়েটা একটা সম্পর্কে জড়ায়। তবে এটি প্রেমিক-প্রেমিকার সম্পর্ক নয়। বাকিটা বলব না। দর্শক দেখে বুঝবে।

একই কাজে দুজন পরিচালক পেলেন
ছন্দপতন হয়নি। মাঝে বিশ্বসুন্দরীর কাজ করলাম। ভাবলাম, কনটিনিউ করতে পারব কি না। শেষ পর্যন্ত একটু সময় নিলাম। নিজেকে তৈরি করে কাজ শুরু করেছি। এটা নতুন নয়। ‘রক্ত’ সিনেমার শুটিংয়েও এমন হয়েছিল। পরিচালক কে, তা নিয়ে মাথা ঘামাই না। গল্পের মধ্যে থাকার চেষ্টা করি।

আপনি নাকি শুটিং সেটে দেরি করে আসেন?
কোনো শুটিংয়ে যদি সঠিক পরিকল্পনা না থাকে, তার দায় তো আমার নয়। সাংবাদিক ছাড়া এ প্রশ্ন কেউ আমাকে করেননি। আমার ক্যারিয়ারে ছবির কাজ শুরু হয়েছে কিন্তু শেষ হয়নি, এমন ইতিহাস নেই। ১০টার সময় শুটিং থাকলে ৫টায় যাব, এটা তো মগের মুল্লুক নয়। অনেকে আধা ঘণ্টা আগে যায়, আমি হয়তো সে সময়টায় যেতে পারি না। আমার জন্য ক্যামেরা ১০ মিনিট বসে থাকেনি। তবে আমি এক ঘণ্টা আগে স্পটে গিয়ে বসে থাকার মানুষ নয়। পরিচালক আমাকে শুটিং সেটে ডেকে নিয়ে সারা দিন বসিয়ে রাখেন। এসব নিয়ে তো কিছু বলিনি কখনো।

আপনাদের সম্পর্ক …
আমার যে সম্পর্ক ছিল, এটাই ভুলে গেছি। আবার প্রেম করতে হবে, এত কাজ করলে হবে না।

পুরোনো সম্পর্কে নাকি নতুন কোনো…
দেখি ভেবে। প্রেম একটা আছে…আমার বাড়িতে এখন এতগুলো চলচ্চিত্রের স্ক্রিপ্ট, মনে হয় সামনে আমার পরীক্ষা। এত মোটা মোটা স্ক্রিপ্ট। হাঁটি। খাই। পড়ি। এখন এসবের সঙ্গেই আমার প্রেম।

পরীমনি বললেন, আমি মনে হয় বিয়ের জন্য ফিট নই।আমার যে সম্পর্ক ছিল, এটাই ভুলে গেছি। ছবি: ফেসবুক থেকেবাগদান সারলেন, বিয়ের কোনো খবর নেই। বিয়ে নিয়ে কোনো ভীতি আছে?
আমি মনে হয় বিয়ের জন্য ফিট নই। কারণ, আমি হচ্ছি ক্রেজি লাভার। আমার ভালোবাসা কেউ সহ্য করতে পারে না। আমি বেশি ‘সলিড’, তাই কেউ হজম করতে পারে না।

সারপ্রাইজিং প্রেম কোনটা ছিল?

সত্যি কথা বলতে, আজ পর্যন্ত কেউ আমাকে প্রথমে আই লাভ ইউ বলেনি। আমি বলেছি। সবাই আই লাভ ইউ টু বলেছে। বোঝেন কপাল আমার। হয়তো আমি বুঝতাম, ছেলেটা আমার প্রেমে হাবুডুবু খাচ্ছে, কিন্তু বলছে না। ধরে নিয়ে বলে দিলাম আই লাভ ইউ। এরপর আই লাভ ইউ টু শুনেছি।

আমার মধ্যে আজব আজব কিছু ঘোরে। আপনার কাছে প্রেম-ভালোবাসার মানে কী?
প্রেম একটা ছায়া। আপনি যখন গরমের মধ্যে থাকবেন, তখন ছায়া খুঁজবেন—সেটাই ভালোবাসা।

শোনা যায় আপনার মধ্যে উদ্ভট স্বভাব কাজ করে। কী সেটা?
বাসার মধ্যে লুঙ্গি পরে ঘুরি। আমার মধ্যে আজব আজব কিছু ঘোরে। লুঙ্গি পরে ঘুরতে মজাই লাগে। কক্সবাজার গেলে লুঙ্গি কিনে নিয়ে আসি। মানুষের কিছু পাগলামি থাকে, এটা আমার একটা পাগলামি।

পরীমনি। আপনার জীবনের লক্ষ্য কী?
মানুষের পাশে দাঁড়ানো। কেউ আমাকে নিয়ে দীর্ঘশ্বাস ফেলুক তা চাই না। সোজা কথা, কারও মনে কষ্ট দিয়ে মরতে চাই না। আমাকে পৃথিবীতে কেন পাঠানো হয়েছে, এ উত্তরটাও খোঁজার চেষ্টা করছি।

মন্তব্য করুন

সাম্প্রতিক প্রকাশনা সমূহ

   সাম্প্রতিক খবর



»