ব্রেকিং নিউজ

বাংলাদেশ-পাকিস্তান ম্যাচের ভেন্যুতে নিষিদ্ধ হচ্ছে দর্শক উপস্থিতি

বাংলাদেশ-পাকিস্তান ম্যাচ

করোনাভাইরাস বিশ্ব ক্রীড়াঙ্গনে বড় প্রভাব ফেলছে। ইউরোপের দুটি শীর্ষ ফুটবল লিগ স্থগিত করা হয়েছে। থামিয়ে দেওয়া হয়েছে এনবিএ। ভারত-দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজের ম্যাচ দর্শকবিহীন স্টেডিয়ামে খেলার চিন্তা চলছে। পাকিস্তান অবশ্য আর ভাবনা চিন্তায় থামেনি। করাচিতে পাকিস্তান সুপার লিগের (পিএসএল) বাকি সব ম্যাচেই দর্শকদের স্টেডিয়ামে ঢোকার ব্যাপারে নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয়েছে।

পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান নির্বাহী ওয়াসিম খান আজ জানিয়েছেন, ‘গত ২৪ ঘণ্টায় পরিস্থিতি যা দাঁড়িয়েছে, তারপর পিসিবি উদ্যোগী হওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। আগামী ম্যাচগুলোর সঙ্গে জড়িত সবার নিরাপত্তার কথা চিন্তা করে কিছু ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।’

১৩ মার্চ থকে করাচির সব ম্যাচে গ্যালারি শূন্য রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে পিসিবি। আজকের নির্ধারিত ম্যাচের আগে দর্শকদের স্টেডিয়ামে প্রবেশে বাঁধা দেওয়া হয়নি কিন্তু সবাইকে সাবধানতা অবলম্বন করতে বলা হয়েছে। পিসিবি সব দলের খেলোয়াড়দের হাত মেলাতে নিষেধ করেছে। সমর্থকদেরও খেলোয়াড়দের কাছে গিয়ে অটোগ্রাফ নিতে বা ছবি তুলতে নিষেধ করে দিয়েছে। পিসিবি এরই মাঝে দর্শকদের টিকিটের টাকা ফিরিয়ে দেওয়ার ঘোষণা করেছে।

করাচির জাতীয় স্টেডিয়াম যে তাই বলে একদম খাঁ খাঁ করবে তা নয়। পিএসএলের সঙ্গে যুক্ত স্পনসর, সংবাদমাধ্যম ও অন্যান্য সেবা দাতা প্রতিষ্ঠান স্টেডিয়ামে ঢুকতে পারবে। এ ছাড়া খেলোয়াড়দের পরিবার, খেলোয়াড়দের সহযোগী এবং ফ্র্যাঞ্চাইজির মালিকপক্ষ স্টেডিয়ামে থাকবেন।

শুধু করাচির ম্যাচের ক্ষেত্রেই এই বিধিনিষেধ দেওয়া হয়েছে। বাংলাদেশের পাকিস্তান সফরের শেষ পর্ব করাচিতেই। একটি ওয়ানডে ও টেস্ট খেলার জন্য বাংলাদেশের পাকিস্তানের উদ্দেশ্যে দেশ ছাড়ার কথা ২৯ মার্চ। কিন্তু আগামী দুই সপ্তাহে করোনাভাইরাস সংক্রমণ আরও বেড়ে গেলে সফর বাতিল হওয়ার সম্ভাবনা উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না।

মন্তব্য করুন

সাম্প্রতিক প্রকাশনা সমূহ

   সাম্প্রতিক খবর



»