ব্রেকিং নিউজ

মৈত্রী চুক্তি এবং নিরাপত্তা চুক্তির মৌলিক পার্থক্যগুলো কি কি ?

মৈত্রী চুক্তি বা (Treaty of Friendship) বলতে বুঝায় দুটো দেশের মধ্যে ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক স্থাপনকারী এবং শান্তি ও সহযোগিতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে যে  চুক্তি করা হয় । যেমনঃ

ভারত-বাংলাদেশ মৈত্রী চুক্তি  ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে শান্তি ও সহযোগিতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে ১৯৭২ সালের ১৯ মার্চ ২৫ বছর মেয়াদী একটি মৈত্রী চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন ভারতের তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধী ও বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু  শেখ মুজিবুর রহমান। ইন্দিরা গান্ধীর বাংলাদেশ সফরের সময় এ চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়।

নিরাপত্তা চুক্তি হ’ল এক ধরনের চুক্তি , যেখানে স্বাক্ষরকারীরা একে অপরকে সামরিকভাবে সমর্থন করার এবং একে অপরকে রক্ষা করার প্রতিশ্রুতি দেয়।

 সেপ্টেম্বর ১৯৫১ সালে স্বাক্ষরিত আমেরিকা এবং জাপান এর মধ্যে নিরাপত্তা চুক্তি সংগঠিত হয়।

মৈত্রী চুক্তি এবং নিরাপত্তা চুক্তির মৌলিক পার্থক্যগুলো হলঃ

০১. মৈত্রী চুক্তি শান্তি ও সহযোগিতা  বৃদ্ধির লক্ষ্যে গঠিত হয় অপর দিকে নিরাপত্তা চুক্তি দুটো দেশের মধ্যে সামরিক সমর্থন করার চুক্তি ।

০২. মৈত্রী চুক্তি দুটো দেশের মধ্যে অর্থনৈতিক যোগাযোগ স্থাপন করতে পারে যা নিরাপত্তা চুক্তির মধ্যে বিধ্যমান নয় ।

০৩. মৈত্রী চুক্তি দেশের সামরিক প্রতিষ্ঠান গুলোতে কোন প্রভাব ফেলে না কিন্তু নিরাপত্তা চুক্তি ফেলতে সক্ষম ।

মন্তব্য করুন

সাম্প্রতিক প্রকাশনা সমূহ

   সাম্প্রতিক খবর



»